• রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ০৬:৩৭ অপরাহ্ন
সর্বশেষ
এমপি আজীমকে আগেও তিনবার হত্যার পরিকল্পনা হয়: হারুন ঢাকাবাসীকে সুন্দর জীবন উপহার দিতে কাজ করছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী উন্নয়নের শিখরে পৌঁছাতে সংসদীয় সরকারের বিকল্প নেই: ডেপুটি স্পিকার হিরো আলমকে গাড়ি দেওয়া শিক্ষকের অ্যাকাউন্টে প্রবাসীদের কোটি টাকা আশুলিয়ায় জামায়াতের গোপন বৈঠক, পুরোনো মামলায় গ্রেপ্তার ২২ এমপি আজীমের হত্যাকারীরা প্রায় চিহ্নিত: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পত্রিকার প্রচার সংখ্যা জানতে নতুন ফর্মুলা নিয়ে কাজ করছি: তথ্য প্রতিমন্ত্রী চট্টগ্রাম বন্দরে কোকেন উদ্ধারের মামলার বিচার শেষ হয়নি ৯ বছরও বিচারপতি অপসারণের রিভিউ শুনানি ১১ জুলাই দক্ষ মানবসম্পদ তৈরিতে ইউসেফ কাজ করছে: স্পিকার

দ্রুত বাস্তবে রূপ পাচ্ছে শাহজালাল বিমানবন্দরের ৩য় টার্মিনাল

Reporter Name / ৯৪ Time View
Update : রবিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদক :
রাত-দিন ২৪ ঘণ্টা চলছে হজরত শাহাজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ৩য় টার্মিনালের নির্মাণকাজ। দ্রুত বাস্তবে রূপ পেতে যাচ্ছে টার্মিনাল ভবন। ইতোমধ্যে ২ লাখ ৩০ হাজার বর্গমিটার আয়তনের টার্মিনাল ভবনের ৩০ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। ২০২৩ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে কাজ পুরোপুরি শেষ হবে বলে আশা করছে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক)। টার্মিনালটির নির্মাণকাজের জন্য নির্ধারিত সময় ৪ বছর। ৩ তলা টার্মিনাল ভবনটির নকশা করেছেন স্থপতি রোহানি বাহারিন। তিনি সিপিজি করপোরেশন (প্রাইভেট) লিমিটেডের (সিঙ্গাপুর) স্থপতি। সরেজমিনে দেখা গেলো, কঠোর নিরাপত্তা বেষ্টনীর মধ্যে চলছে তিন নম্বর টার্মিনালের নির্মাণকাজ। করোনা মহামারির জন্য স্বাস্থ্যবিধির বিষয়েও রয়েছে বিশেষ সতর্কতা। একদিকে টার্মিনাল ভবনের মূল কাঠামো নির্মিত হচ্ছে, অন্যদিকে যে অংশের অবকাঠামো হয়ে গেছে সেখানে চলছে পানি, বিদ্যুৎ, ফায়ার হাইড্রেন্ট, এসিসহ অন্যান্য কার্যক্রম। ২১,৩৯৯ কোটি টাকা ব্যয়ে এই প্রকল্পের কাজ করছে জাপানের মিতসুবিশি, ফুজিতা ও কোরিয়ার স্যামসাং-এর যৌথ কনসোর্টিয়াম এভিয়েশন ঢাকা কনসোর্টিয়াম (এডিসি)। এই প্রকল্পে বাংলাদেশ সরকার এবং জাপানের আন্তর্জাতিক সহযোগিতা সংস্থা জাইকা অর্থায়ন করেছে।তৃতীয় টার্মিনাল ভবনের সঙ্গে নকশা অনুযায়ী ভূ-গর্ভস্থ সূড়ঙ্গপথের কাজও প্রায় শেষ হওয়ার পথে। চলছে উড়াল সেতুর নির্মাণকাজ। যার সঙ্গে মেট্রোরেল ও ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের সংযোগ থাকবে। তৃতীয় টার্মিনালে থাকবে আন্তজার্তিক মানের অগ্নি নির্বাপক ব্যবস্থা। সরেজমিনে দেখা গেছে, ভবনের যে অংশের কাজ শেষ হয়েছে সেখানে অগ্নি নির্বাপক যন্ত্র ও পানির লাইন বসানোর কাজ চলছে। হজরত শাহাজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সম্প্রসারণ প্রকল্পের আওতায় ৩য় টার্মিনালে বোর্ডিং ব্রিজ থাকবে ১২টি, চেক-ইন কাউন্টার ১১৫টি, কনভেয়র বেল্ট ১৬টি, ২৫টি উড়োজাহাজের অ্যাপ্রোন পার্কিং ও ৩ তলা বিশিষ্ট পার্কিং ভবনে একসঙ্গে ১২৩০টি গাড়ি রাখার ব্যবস্থা।এখন যে টার্মিনাল, তাতে সক্ষমতার ঘাটতি থাকায় যাত্রীদের নানা দুর্ভোগে পড়তে হয়। তবে তৃতীয় টার্মিনালে বছরে যাত্রী ধারণক্ষমতা হবে ১২ মিলিয়ন। বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মো. মফিদুর রহমান বলেন, তৃতীয় টার্মিনালের নির্মাণকাজ সন্তোষজনক। যাত্রীদের আধুনিক সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করতে কাজের মানও মনিটরিং করা হচ্ছে। ইতোমধ্যে ৩০ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। টার্মিনাল ভবন ছাড়াও ৩৬,৮০০ বর্গমিটার এক্সপোর্ট কার্গো ও ২৭,০০০ বর্গমিটার ইমপোর্ট কার্গোর নির্মাণকাজ চলছে। নির্ধারিত সময়ের আগেই এ টার্মিনালের নির্মাণকাজ শেষ হবে বলে আশাবাদী বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলী। তিনি বলেন, যেই গতিতে কাজ চলছে তাতে ২০২৩ সালের মধ্যে কাজ শেষ করা সম্ভব হবে। তখন একটি আধুনিক টার্মিনাল যাত্রীদের জন্য উন্মুক্ত করা হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category