• বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ০৩:১৬ অপরাহ্ন
সর্বশেষ
এএসপি আনিস হত্যা মামলায় বাবার সাক্ষ্য গ্রহণ শেষ আমরা যুদ্ধ চাই না, শান্তি চাই: শেখ হাসিনা আগামী বাজেটে মূল্যস্ফীতি রোধে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেওয়া হবে: অর্থ প্রতিমন্ত্রী অ্যামাজন-শেভরন-বোয়িং বাংলাদেশে বিনিয়োগে আগ্রহী: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী অবৈধ সম্পদ অর্জন: স্ত্রীসহ পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে দুদকের মামলা জলবায়ুর ঝুঁকি মোকাবেলা আন্তর্জাতিক সহায়তার আহ্বান পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বেনজীর-আজিজকে সরকার প্রটেকশন দেবে না: সালমান এফ রহমান ভিকারুননিসায় যমজ বোনকে ভর্তির নির্দেশ হাইকোর্টের এবারও ধরাছোঁয়ার বাইরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কমিটি পটুয়াখালীর দুর্গত এলাকা পরিদর্শনে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

হত্যা মামলায় জাপানি হান্নানসহ ১৩ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র

Reporter Name / ৩০০ Time View
Update : বুধবার, ২ ফেব্রুয়ারি, ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদক :
রাজধানীর দক্ষিণখান থানার আইনুশবাগ এলাকার বাসিন্দা আবদুর রশিদকে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যার ঘটনায় জাপানি হান্নান, তার ছেলে ও ভাইসহ ১৩ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেছে পুলিশ। আজ বুধবার আদালতের সংশ্লিষ্ট সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। সূত্র জানায়, সম্প্রতি ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দক্ষিণখান থানার পরিদর্শক আজিজুল হক এ অভিযোগপত্র দাখিল করেন। অভিযোগপত্রে অপর আসামিরা হলেনÑজাপানি হান্নানের ছেলে মো. ইকরামুল ইসলাম, তার ভাই মো. শফিকুল ইসলাম, মো. আল আমিন, মো. জহিরুল ইসলাম রিপন প্রধান, মো. খোরশেদ আলম, মো. মোশারফ হোসেন, মো. নুরনবী, সবুজ, মো. হাবিবুর রহমান, সজল, মো. ধলা মিয়া ও মো. আবদুল মালেক। এ ১৩ আসামির মধ্যে সবুজ, হাবিবুর রহমান, সজল, ধলা মিয়া পলাতক থাকায় তাদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির আবেদন করা হয়েছে। এছাড়াও নাম-ঠিকানা খুঁজে না পাওয়ায় আসামি শাহাদাত হোসেনসহ অজ্ঞাত ৬/৭ জনকে মামলার দায় থেকে অব্যাহতি দেওয়ার আবেদন করা হয়েছে। উল্লেখ্য, গত ২৪ মার্চ বেলা সাড়ে ১১টার দিকে দক্ষিণখানের আইনুশবাগ (চাঁদনগর) এলাকায় আবদুর রশীদ নামে এক যুবককে জাপানি হান্নান ও তার সহযোগীরা গুলি করে হত্যা করে। হত্যার পর সড়কে দীর্ঘক্ষণ পড়েছিল রশীদের মরদেহ। এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে রশীদ ও হান্নানের মধ্যে পূর্ব-শত্রুতা ছিল। সর্বশেষ বালু রাখাকে কেন্দ্র করে রশীদের কাছে চাঁদা দাবি করে হান্নান। চাঁদা দিতে রাজি না হওয়ায় দুপক্ষের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। আবদুর রশিদ ওই এলাকার আবদুল মালেকের ছেলে। তিনি রড-সিমেন্টের ব্যবসা করতেন। ঘটনার পর হান্নানসহ আটজনকে আটক করে পুলিশ। পরে ওইদিন রাতেই নিহত আবদুর রশিদের বড় ভাই হারুন অর রশিদ বাদী হয়ে হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার এজাহারে জাপানি হান্নানসহ ১৩ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাত পরিচয়ে পাঁচজনসহ মোট ১৮ জনকে আসামি করা হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category